খুলা | বুধবার | ০২ ডিসেম্বর ২০২০ | ১৮ অগ্রাহায়ণ ১৪২৭ |

Shomoyer Khobor

নগরীতে ইসলামী আন্দোলনের সমাবেশে নেতৃবৃন্দ

ফ্রান্স সরকার প্রিয় নবীর বিরুদ্ধে ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের মাধ্যমে হিংসাত্মক মনোভাব প্রকাশ করেছে

নিজস্ব প্রতিবেদক | প্রকাশিত ৩০ অক্টোবর, ২০২০ ০০:৫২:০০


ফ্রান্সে রাসুল (সাঃ) কে নিয়ে ব্যঙ্গচিত্র প্রদর্শনের প্রতিবাদ, ফ্রান্সের সকল পণ্য বয়কট ও কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে গতকাল বৃহস্পতিবার বিকেল ৩টায় ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ মহানগর ও জেলার উদ্যোগে নগরীর পাওয়ার হাউজ মোড়ে প্রতিবাদ সমাবেশ ও বিক্ষোভ মিছিল অনুষ্ঠিত হয়।
দলটির নগর সভাপতি মুফতী আমানুল্লাহ’র সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারী শেখ মোঃ নাসির উদ্দিন, জেলা সেক্রেটারী মোঃ আব্দুল্লাহ আল মামুনের পরিচালনায় অনুষ্ঠিত সমাবেশে প্রধান অতিথি ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশের নায়েবে আমীর অধ্যক্ষ হাফেজ মাওঃ আব্দুল আউয়াল। প্রধান বক্তা ছিলেন ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ জেলা সভাপতি অধ্যাপক মাওঃ আব্দুল্লাহ ইমরান। 
সমাবেশে আব্দুল আউয়াল বলেন, মুসলমানরা তাদের নবীকে প্রাণের চেয়ে বেশি ভালোবাসে। মহানবীর অপমান মুসলমানরা সহ্য করবে না। ফ্রান্স সরকার নবীর বিরুদ্ধে ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের মাধ্যমে তাদের হিংসাত্মক মনোভাব প্রকাশ করেছে। তিনি বলেন, ফ্রান্স সরকার নবীর বিরুদ্ধে ব্যঙ্গচিত্র প্রকাশের মাধ্যমে বিশ্বমুসলিমকে উস্কে দিয়ে বিশ্বব্যাপী অশান্তির আগুন জ্বালিয়ে দিয়েছে। ফ্রান্সের ধর্মবিরোধী এ অবমাননা বিশ্বমুসলিম নেতৃত্বকে ঐক্যবদ্ধভাবে রুখে দিতে হবে। তিনি আরো বলেন, ফ্রান্স সরকারকে অবিলম্বে এ ধৃষ্টতাপূর্ণ ব্যঙ্গচিত্র প্রচারনা বন্ধ করে প্রকাশ্যে ক্ষমা চাইতে হবে। অন্যথায় ফ্রান্সের বিরুদ্ধে সারাবিশ্বে প্রতিবাদের দাবানল ছড়িয়ে পড়বে। 
বক্তারা বলেন, ফ্রান্সের প্রধানমন্ত্রীও এর আগে ইসলাম ধর্ম নিয়ে অবমাননাকর বক্তব্য দিয়েছে। এসব উগ্র কর্মকান্ড প্রমাণ করে ফ্রান্স সরকার ইসলাম ও মুসলমানদের বিরুদ্ধে যুদ্ধ ঘোষণা করেছে। ফ্রান্স সরকারের বিরুদ্ধে অবস্থান নেয়া বিশ্বের মুসলমানদের নৈতিক ও ঈমানি দায়িত্ব। অবিলম্বে সরকারিভাবে ফ্রান্সের এই ঘটনার জন্য আনুষ্ঠানিকভাবে কড়া প্রতিবাদ ও কূটনৈতিক সম্পর্ক ছিন্ন করার জন্য সরকারের প্রতি আহ্বান জানান। নেতৃবৃন্দ মুসলমানদেরকে ফ্রান্সের সকল পন্য বয়কটের আহ্বান জানান। 
সমাবেশে বক্তৃতা করেন মাওঃ মোজাফ্ফার হোসাইন, মুফতী মাহবুবুর রহমান, মাওলানা রেজাউল করিম, শেখ জামিল আহমদ, ওলামা মাশায়েখ আইম্মা পরিষদের নগর সভাপতি মুফতী গোলামুর রহমান, মাওঃ দ্বীন ইসলাম, মাওলানা আসাদুল্লাহ হামিদি, মাওঃ মুফতী ইমরান হোসাইন, মাওলানা আসাদুল্লাহ আল গালিব, হাফেজ মাওঃ আলী আহমেদ, মোল্লা রবিউল ইসলাম তুষার, মাওলানা মুজিবুর রহমান, ডাঃ মাওঃ নাসির উদ্দিন, মাওলানা হারুনুর রশিদ, ফেরদৌস গাজী, এস কে নাজমুল হাসান, মোঃ শরিফুল ইসলাম, মাওলানা আব্দুস সাত্তার হালদার, মোঃ সাইফুল ইসলাম, র মাওলানা আশরাফুল ইসলাম, মুক্তিযোদ্ধা জিএম কিবরিয়া, মোঃ হুমায়ুন কবির, মোমিনুল ইসলাম, হাফেজ মোস্তাফিজুর রহমান, মাওঃ হাফিজুর রহমান, মাওলানা মাহবুবুল আলম, মোঃ আব্দুল্লাহ আল নোমান, মোহাম্মদ আকিছুর রহমান, মাওঃ আবু সাঈদ, মোঃ ইমরান হোসেন মিয়া, আমজাদ হোসেন, মোঃ আবুল কালাম আজাদ, হাফেজ আবুল কালাম আজাদ, মাওঃ শায়খুল ইসলাম বিন হাসান, এড. কামাল হোসেন, শহিদুল ইসলাম বিশ্বাস, আব্দুস ছালাম, রফিকুল ইসলাম, হাফেজ আব্দুল লতিফ, আব্দুল জলিল, আবু তাহের, জিএম নওশের আলী, শেখ হাসান ওবায়দুল করীম, মাওঃ সিরাজুল ইসলাম, জাহিদুল ইসলাম, হাফেজ খায়রুল ইসলাম, বন্দ সরোয়ার হোসাইন, মোঃ রিপন হোসেন, আব্দুর রউফ শেখ, জাতীয় শিক্ষক ফোরাম নগর সভাপতি মুফতী রবিউল ইসলাম রাফে, জেলা সভাপতি মাওঃ আব্দুস সাত্তার, নগর সম্পাদক মাওঃ শায়খুল ইসলাম, জেলা সম্পাদক মাওঃ মাহবুবুল আলম, শ্রমিক আন্দোলন নগর সভাপতি জাহিদুল ইসলাম, নগর সাধারণ সম্পাদক গাজী মুরাদ হোসেন, জেলা সাধারণ সম্পাদক মাওঃ হেলাল শিকারী, যুব আন্দোলন নগর সভাপতি আবুল কাশেম, জেলা সভাপতি মাওঃ তাওহীদুল ইসলাম মামুন, নগর সাধারণ সম্পাদক মুফতী আমিরুল ইসলাম, জেলা সাধারণ সম্পাদক মাওঃ মোস্তাফিজুর রহমান, ছাত্র আন্দোলন নগর সভাপতি এইচ এম খালিদ সাইফুল্লাহ, জেলা সভাপতি নাজমুস সাকিব, বিএল কলেজ সভাপতি কাজী আল আমিন, নগর সহ সভাপতি আব্দুস সালাম, জেলা সহ-সভাপতি কে এম মাহমুদুল হাসান, নগর সাধারণ সম্পাদক মোঃ মঈনুল ইসলাম, জেলা সাধারণ সম্পাদক মোঃ এনামুল হাসান সাঈদ, বিএল কলেজ সাধারণ সম্পাদক আব্দুল্লাহ আল মামুন। আরও উপস্থিত ছিলেন মাওঃ রশীদ আহমেদ, মুফতী অহিদুল ইসলাম, মুফতী মুশতাক আহমেদ, মুফতী রাসেল কবীর, মোঃ কামরুজ্জামান, মুফতী আওসাফুর রহমান, মোঃ নজরুল ইসলাম, মোঃ সজীব, মোঃ আমজাদ হোসেন, মোঃ মঈন উদ্দিন ভূঁইয়া প্রমুখ। সমাবেশ শেষে এক বিশাল মিছিল শহরের প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করেন।
 


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ