খুলনা | শুক্রবার | ০৭ মে ২০২১ | ২৪ বৈশাখ ১৪২৮ |

Shomoyer Khobor

যোগি আদিত্যনাথকে হত্যার হুমকি

খবর প্রতিবেদন  | প্রকাশিত ০৪ মে, ২০২১ ১৫:৩০:০০

'হাতে চার দিন সময়, যা করার করে নিন'- এমন একটা খুদেবার্তা ভারতের উত্তর প্রদেশ পুলিশের ঘুম কেড়ে নিয়েছে। উত্তর প্রদেশ পুলিশের একটি বিশেষ দল খুঁজে বের করার চেষ্টা করছে বার্তার উৎসস্থল। 

আসলে উত্তর প্রদেশ পুলিশের আপৎকালীন নম্বরে যোগি আদিত্যনাথের উদ্দেশে প্রাণনাশের হুমকির বার্তা আসে। কে পাঠিয়েছে সে বার্তা, সেটাই খুঁজে বের করার চেষ্টা চলছে। তবে হত্যার এমন হুমকি যোগি আদিত্যনাথকে এর আগেও দেওয়া হয়েছে।

উত্তর প্রদেশ পুলিশের আপৎকালীন নম্বর '১১২'-তে ২৯ এপ্রিল বার্তাটি আসে। তারপর সুশান্ত গল্ফ সিটি থানায় একটি অভিযোগ দায়ের করা হয় অজ্ঞাতপরিচয় ব্যক্তির বিরুদ্ধে। 

এর আগেও এমন হুমকি সম্বলিত ফোন বা খুদেবার্তা এসেছে। তার পরেও এবার এই মেসেজকে মোটেও হালকাভাবে দেখতে নারাজ উত্তর প্রদেশ পুলিশ। একটি তদন্তদল তৈরি করে অভিযুক্তের খোঁজ চলছে। যদিও এখন পর্যন্ত কাউকে খুঁজে বের করা সম্ভব হয়নি।

গত বছরের সেপ্টেম্বর, নভেম্বর এবং ডিসেম্বরে যোগি আদিত্যনাথকে হত্যার হুমকি দিয়ে মেসেজ বা ফোন কল আসে উত্তর প্রদেশ পুলিশের কাছে। নভেম্বরে এক কিশোরকে এ অভিযোগে আটক করে পুলিশ। 

ওই হুমকির পেছনে ছিল ১৫ বছরের কিশোর। সেবারও ১১২ নম্বরে মেসেজ করে হত্যার হুমকি দেওয়া হয়। পরে পুলিশ সেই নম্বরের মালিক ওই কিশোরকে খুঁজে বের করে। পরে তাকে আগ্রার এক জুভেনাইল হোমে পাঠানো হয়। 

পুলিশ বলছে, করোনার কারণে স্কুল বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে। সে কারণে নাকি ওই স্কুলছাত্র রেগে গিয়ে যোগি আদিত্যনাথকে খুনের হুমকি দিয়ে বসে।

যোগি অবশ্য জেড প্লাস ভিভিআইপি স্তরের নিরাপত্তা পান ২০১৭ সাল থেকেই। ভারতের যেখানেই যান তার সঙ্গে ২৫-২৮ জনের একটি কমান্ডো বাহিনী থাকে। সিআইএসএফের একটি শক্তিশালী দল তাকে সব সময় ঘিরে রাখে। এমনকি তার অফিস এবং বাসভবনেও একই নিরাপত্তা ব্যবস্থা রয়েছে।
সূত্র : সংবাদ প্রতিদিন


পাঠকের মন্তব্য (০)

লগইন করুন




আরো সংবাদ














ব্রেকিং নিউজ