খুলনা | বুধবার | ২১ ফেব্রুয়ারী ২০২৪ | ৮ ফাল্গুন ১৪৩০

ডুমুরিয়ায় ট্রাক ও ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষ

সড়কে ঝরলো একই পরিবারের ৩ সদস্যসহ পাঁচজনের প্রাণ

নিজস্ব প্রতিবেদক ও ডুমুরিয়া প্রতিনিধি |
০৫:২০ পি.এম | ১০ ফেব্রুয়ারী ২০২৪


খুলনার ডুমুরিয়া উপজেলায় ইটবাহী ট্রাক ও ব্যাটারিচালিত ইজিবাইকের মুখোমুখি সংঘর্ষে একই পরিবারের ৩ সদস্যসহ ৫ জন নিহত হয়েছে। নিহত ব্যক্তিদের মধ্যে দু’জন ঘটনাস্থলে, দু’জন ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ও শিশু অর্নি খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে মারা যায়। এছাড়া গুরুতর আহত দু’জনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে ভর্তি করা হয়েছে। হতাহত সবাই ইজিবাইকের যাত্রী ছিলেন।
শনিবার বিকেল পৌনে চারটার দিকে উপজেলার খর্নিয়া ইউনিয়নের আংগারদোহা কালভার্ট এলাকায় খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কে এ দুর্ঘটনা ঘটে। ঘাতক ট্রাকটি আটক করে পুলিশ। প্রায় ১ ঘন্টা খুলনা-সাতক্ষীরা মহাসড়কে যানচলাচল বন্ধ ছিল। হাসপাতালে চলে নিহতদের স্বজনদের গগন বিদারী আহাজারী।
পুলিশ, ফায়ার সার্ভিস ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, চুকনগর থেকে একটি ইজিবাইক ৬ জন যাত্রী নিয়ে ডুমুরিয়া অভিমুখে যাচ্ছিলেন। পথিমধ্যে  ঘটনাস্থলে পৌঁছালে বিপরীত দিক থেকে আসা (খুলনা-মেট্রো-
শ-১১-০৫১০) বেপরোয়া গতির একটি ট্রাক ইজিবাইকটিকে সজোরে ধাক্কা দেয়। প্রচন্ড আঘাত পেয়ে ইজিবাইকটি দুমড়ে-মুচড়ে রাস্তার উপর ছিটকে পড়ে। ইজিবাইকে থাকা যাত্রী ডুমুরিয়ার আঙ্গারদহা এলাকার আঃ হান্নান মোড়লের ছেলে সাব্বির হোসেন (২৫), বিলপাবলা এলাকার অপু বিশ্বাসের স্ত্রী নিপা বিশ্বাস (২৬), ইজিবাইক চালক জিয়েলতলা এলাকার বিষ্ণুপদ বিশ্বাসের ছেলে বিশ্বজিৎ বিশ্বাস (৩৫), বিলপাবলা এলাকার অনিমেষ ঢালির স্ত্রী অমরী ঢালীর (৪৫) মৃত্যু হয়। 
দুর্ঘটনাস্থল থেকে গুরুতর আহত বিশ্বজিতের মেয়ে অর্ণি বিশ্বাস (৪), ছেলে অর্জিত বিশ্বাস (৬) ও ইজিবাইক চালক বিশ্বজিতের স্ত্রী অন্তিমা বিশ্বাস (২৮)-কে ডুমুরিয়ার ফায়ার সার্ভিস উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে ভর্তি করে। পরে তাদেরকে দ্রুত খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে অবুঝ শিশু অর্নি বিশ্বাস (৪) মারা যায়।
খর্নিয়া হাইওয়ে থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) হামিদ উদ্দিন আহমেদ সংবাদ মাধ্যমকে বলেন, বিকেল পৌনে চারটার দিকে দুর্ঘটনা ঘটে। চালকসহ ইজিবাইকে সাতজন যাত্রী ছিলেন। ইজিবাইকটি চুকনগর থেকে খুলনার দিকে যাচ্ছিল। খুলনা থেকে ইটবাহী একটি ট্রাক চুকনগরের দিকে যাওয়ার পথে মুখোমুখি সংঘর্ষ হয়। এতে ঘটনাস্থলেই দু’জন নিহত হন। আশঙ্কাজনক অবস্থায় পাঁচজনকে ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে পাঠানো হয়। ইজিবাইকটি দুমড়ে-মুচড়ে গেছে। ট্রাকটি জব্দ করা হয়েছে।
ডুমুরিয়া থানার ওসি সুকান্ত সাহা বলেন, ঘটনাস্থলে দু’জন ও ডুমুরিয়া উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে দু’জন মারা গেছেন। বাকি তিনজনকে খুলনা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় হাইওয়ে পুলিশ আইনি ব্যবস্থা নেবে।
এদিকে মর্মান্তিক সড়ক দুর্ঘটনার খবর পেয়ে নিহতদের প্রতি গভীর শোক ও শোকাহত পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাতে ঘটনাস্থলে ছুটে যান উপজেলা প্রশাসনের সহকারী কমিশনার (ভূমি) আশিস মমতাজ, শোভনা ইউপি চেয়ারম্যান সুরঞ্জিত কুমার বৈদ, উপজেলা আওয়ামী লীগ নেতা অধ্যাপক জিএম ফারুক হোসেনসহ বিভিন্ন পর্যায়ের নেতৃবৃন্দ।

প্রিন্ট

আরও সংবাদ