খুলনা | শুক্রবার | ০১ জুলাই ২০২২ | ১৭ আষাঢ় ১৪২৯

প্রসঙ্গ : যুক্তরাষ্ট্রে স্কুলে গুলি

ধর্মহীন শিক্ষা মানুষকে বর্বর করে তোলে

প্রফেসর ড. মুহাম্মদ ইউসুফ আলী |
০২:০৩ এ.এম | ১১ জুন ২০২২


গুলি চালিয়ে মানুষ হত্যা করা এখন উন্নত বিশ্বে একটি সাধারণ ব্যাপার হয়ে দাঁড়িয়েছে। গত ২৪ মে যুক্তরাষ্ট্রের টেক্সাস অঙ্গরাজ্যে একটি স্কুলে এলোপাথাড়ি গুলি চালিয়ে ১৯ জন শিক্ষার্থীসহ কমছে কম ২১ জনকে হত্যা করা হয়েছে। এ হামলার মাত্র ১০ দিন আগেও নিউইয়র্কের বাফেলো শহরে একটি সুপারমার্কেটে গুলি চালিয়ে ১০ জনকে হত্যা করা হয়। সবচেয়ে উদ্বেগের ব্যাপার, সা¤প্রতিক স্কুলে হামলাকারী হলো ওই স্কুলেরই একজন ছাত্র যার বয়স সবেমাত্র ১৮ হয়েছে। বিবিসির পরিসংখ্যানে দেখা গেছে, হামলার আশঙ্কা ২০২১ সালে আগের তুলনায় দ্বিগুণ বৃদ্ধি পেয়েছে। হামলাকারীদের উলে­খযোগ্য সংখ্যক হলো আবার স্কুল-কলেজের ছাত্র। এর আগেও আমেরিকাতে বেশ কয়েকটি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানে নির্বিচারে গুলি করে অসংখ্য শিক্ষার্থীকে হত্যা করা হয়। এখন প্রশ্ন হলো, যে সমস্ত ছাত্ররা আজ বন্দুক চালাচ্ছে তাদেরই সহপাঠীদের বুকের ওপর তারা আসলে কি শিখছে? নিজের পরিচিত বন্ধুদের বুকে গুলি চালাতে একটুও হাত কাঁপলো না? বিবেক একটুও নাড়া দিলো না? স্কুলে কি শিখলো তারা? অথচ তারা উন্নত শিক্ষায় শিক্ষিত। এই অবস্থা দেখে বিশেষজ্ঞগণ অনেকে মন্তব্য করছেন যে, ধর্ম ও নৈতিক শিক্ষা না থাকার কারণে তাদের এই অবনতি হয়েছে। কারণ ধর্মীয় ও নৈতিক শিক্ষাই পারে একজন মানুষকে প্রকৃত মানুষ করতে। কারণ শিক্ষা হলো সেই জিনিস যা মানুষকে মানুষ বানায়, বিবেককে করে জাগরিত। বিশ্বখ্যাত শিক্ষাবিদ ও দার্শনিক জন মিলটন বলেন, "Education is the harmonious development of body, mind and soul" অর্থাৎ, দেহ, মন ও আত্মার সমন্বিত বিকাশের নামই হলো শিক্ষা। অন্য এক দার্শনিক মন্তব্য করেন, If you teach your children the three R's; Reading, Writing, Arithmetic (Rithmetic) and leave the great 'R' (Religion), you will produce a fourth 'R' (Rascaldom) & get a nation of cunning devils". অর্থাৎ, যদি তুমি তোমার সন্তানকে তিনটি R, অর্থাৎ পড়া, লেখা ও গণিত শিক্ষা দাও, কিন্তু বড় R- Religion  বা ধর্ম শিক্ষা না দাও তাহলে তুমি চতুর্থ আর একটি 'R' পাবে Rascaldom অর্থাৎ ভ্রষ্টতা বা বর্বরতা; এবং তুমি একটি নষ্ট জাতি পাবে। আজকে আমেরিকার স্কুলে গুলি চালানোর ঘটনায় এই বিষয়টিই পরিষ্কার হচ্ছে যে তারা যা শিক্ষা দিচ্ছে তা যথেষ্ট নয়। এর জন্য দরকার উন্নত ধর্মীয় ও নৈতিক শিক্ষা। উদাহরণস্বরূপ, কুরআনের একটি বাণী লক্ষ্য করি। পবিত্র কুরআনে বলা হয়েছে, যে ব্যাক্তি অন্যায়ভাবে কাউকে হত্যা করলো সে যেন সমগ্র মানবগোষ্ঠীকেই হত্যা করলো। ধর্মের এই বাণী যার দীলে থাকবে সে কখনও মানুষ হত্যা করতে পারে না। কুরআন হাদিসের শিক্ষা হলো, মানুষতো অনেক পরের ব্যাপার অন্যায়ভাবে একটা পিঁপড়াকেও মারা যাবেনা; একটি গাছকেও ওপড়ানো যাবে না। এমনকি যুদ্ধের ময়দানেও গাছ কেটে ফেলা নিষেধ। আমাদের যুব সমাজকে বাঁচাতে এবং শিক্ষার্থীদের বিবেক জাগ্রত করতে সঠিক ধর্মীয় শিক্ষার কোন বিকল্প নেই। যুক্তরাষ্ট্রে শিক্ষার্থীদের বুকে অন্য শিক্ষার্থীর গুলি চালানো এটাই আমাদের চোখে আঙ্গুল দিয়ে দেখিয়ে দিচ্ছে যে, ধর্মহীন শিক্ষা শুধু বর্বরতা ও ভ্রষ্টতাই বৃদ্ধি করবে।
লেখক : মৎস্য-বিজ্ঞানী ও অধ্যাপক, খুলনা বিশ্ববিদ্যালয়।

প্রিন্ট

আরও সংবাদ