খুলনা | শনিবার | ০৪ ফেব্রুয়ারী ২০২৩ | ২২ মাঘ ১৪২৯

শার্শায় আ’লীগের দুই গ্র“পের সংঘর্ষে আহত ১২

শার্শা (যশোর) প্রতিনিধি |
১২:৪৭ এ.এম | ০৪ ডিসেম্বর ২০২২


যশোরের শার্শায় আওয়ামী লীগের সাবেক চেয়ারম্যান ও বর্তমান ইউপি সদস্যের সন্ত্রাসী বাহিনীর হামলায় আহত হয়েছেন ক্ষমতাসীন আওয়ামী লীগের ১২ জন কর্মী। এর মধ্যে গুরুতর আহত বহিলাপোতা গ্রামের মামুন, রুবেল হোসেন ও জমির হোসেনকে উন্নত চিকিৎসার জন্য যশোর ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট জেনারেল হাসপাতালে পাঠানো হয়েছে। অন্যান্যরা স্থানীয় ভাবে চিকিৎসা নিয়েছেন। গতকাল শনিবার দুপুরে উপজেলার লক্ষণপুর ইউনিয়নের বহিলাপোতা গ্রামে এ হামলার ঘটনা ঘটে।
পুলিশ ও আহতদের পরিবার সূত্রে জানা যায়, পূর্বশক্রতার জের ও এলাকায় আধিপত্য বিস্তারকে কেন্দ্র করে শনিবার সকালে বহিলাপোতা গ্রামের মাদক সম্রাট জব্বার বাহিনী ও সাবেক চেয়ারম্যান কামাল বাহিনীর সাথে একই এলাকার সাবেক মেম্বর মুজিবর ও তার ছেলেদের কথা কাটাকাটি হয়। এরপর দুপুরে জব্বার ও কামাল বাহিনীর নেতৃত্বে একদল দেশীয় অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী অর্তকিতভাবে মুজিবুর রহমানসহ পরিবারের উপর হামলা চালায়। এলাকার লোকজন পুলিশে খবর দিলে পুলিশ ঘটনাস্থলে পৌঁছে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণ করে। এ ঘটনায় বহিলাপোতা গ্রামে বর্তমানে থমথমে অবস্থা বিরাজ করছে। 
স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান আনোয়ারা বেগম বলেন, তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে ওই দুই গ্র“পের মধ্যে এ ঘটনার সৃষ্টি হয়েছে। দুই পরিবারের আগে থেকেই বিভেদের কারণে রবিবার স্থানীয় লোকজন ও এলাকাবাসীকে সাথে নিয়ে বসার কথা ছিলো। কিন্তু শনিবার দুপুরে হঠাৎ শুনলাম দু’গ্র“পের মধ্যে মারামারি হয়েছে এবং ১০/১২ জন আহত হয়ে হাসপাতালে। দু’গ্র“পের সকলে আওয়ামী লীগের রাজনীতি করে। শার্শা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুন খান বলেন, মারামারির বিষয়টি শুনেছি। ঘটনাস্থলে পুলিশ পাঠানো হয়েছে, পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে। এখনো পর্যন্ত থানায় কোন অভিযোগ আসেনি। অভিযোগ পেলে তদন্ত সাপেক্ষে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। 

প্রিন্ট

আরও সংবাদ